ঢাকা, বাংলাদেশ | বুধবার, ২৪ জুলাই, ২০২৪ খ্রিষ্টাব্দ

শিরোনামঃ

   চট্টগ্রামে কোটা সংস্কার আন্দোলনে গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত দুই তরুণ    কোটা সংস্কার আন্দোলন ঘিরে সংঘর্ষে এখন পর্যন্ত ১১ জনের মৃত্যুর খবর    আন্দোলনকারীদের পূর্ণ সমর্থন জানিয়েছে জামায়াত    নরসিংদীতে কোটা আন্দোলনে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে স্কুলশিক্ষার্থী নিহত    নাটোরে মিছিলের প্রস্তুতির সময় ১৮ স্কুলছাত্রকে পুলিশে দিলেন প্রধান শিক্ষক    জুলাইয়ের ২১, ২৩ ও ২৫ তারিখের এইচএসসি পরীক্ষা স্থগিত    ছাত্রলীগ-কোটা আন্দোলনকারিদের সংঘর্ষ, ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক অবরোধ    কোটা আন্দোলনে রেসিডেনসিয়াল কলেজের শিক্ষার্থী ফারহান নিহত    শ্রীমঙ্গলে চাঞ্চল্যকর আইনজীবী হত্যাকাণ্ডে জড়িত ২জন গ্রেপ্তার    চট্টগ্রাম রেগুলেশন বাতিলের ষড়যন্ত্র বন্ধের দাবিতে মিছিল    চুয়াডাঙ্গায় শিক্ষার্থীদের সড়ক অবরোধ; ছাত্রলীগের হামলা    আজ বন্ধ থাক‌বে ভারতীয় ভিসা সেন্টার    উত্তরায় গুলিতে নর্দান বিশ্ববিদ্যালয়ের ২ শিক্ষার্থী নিহত    টাঙ্গাইলে আন্দোলনকারীদের সঙ্গে পুলিশের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া    মিরপুর ১০ নম্বরে সংঘর্ষ চলাকালীন পুলিশ বক্সে আগুন

যশোরের সাতমাইল মথুরাপুর রেললাইনের পাশে অজ্ঞাত মৃতদেহের পরিচয় সনাক্ত করেছে পুলিশ। 

নিহত আঁখি মনি (১৪) ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার দড়িয়াপাড়া গ্রামের বাসিন্দা।

মঙ্গলবার (১৯ সেপ্টেম্বর) দুপুরে জেলা পুলিশ লাইন্সের কনফারেন্স রুমে সংবাদ সম্মেলনে বিস্তারিত তুলে ধরেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বেলাল হোসাইন।

পুলিশ জানিয়েছে আঁখি মনিকে ধর্ষণের পর হত্যা করে লাশ রেললাইনের পাশে ফেলে দেয় তার পালিত পিতা মিন্টু সরদার (৩৯)।

আঁখি মনি মহেশপুরের দাড়িয়াপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী ছিল।

বেলাল হোসাইন জানান, গত ১৬ সেপ্টেম্বর ভিকটিম আঁখি মনিকে নিয়ে তার পালিত বাবা চৌগাছা বলুহ দেওয়ানের মেলায় ঘুরতে নিয়ে যায়।

ঘুরাঘুরি শেষে পরের দিন রবিবার যশোর রেল ষ্টেশনে পৌঁছে হোটেল বৈকালী আবাসিকে ডি-৫ নং রুমে ওঠে।

সেখানে ভিকটিম আখি মনির ইচ্ছার বিরুদ্ধে তাকে ধর্ষণ করে। পরে ওই দিন রাতে ট্রেন যোগে বাড়ি ফেরার সময় রাতে যশোর রেল ষ্টেশনের পাশে ঝোপঝাড়ের মধ্যে পুনরায় ধর্ষণ করে।

 

রাত ১১টার দিকে সীমান্ত এক্সপ্রেস ট্রেনে বাড়ি ফেরার পথে ধর্ষণের ঘটনা ধামাচাপা দেওয়ার জন্য চলন্ত ট্রেনে গলা টিপে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে।

এরপর চলন্ত ট্রেন থেকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দেয়। আঁখির পায়েল (নুপুর) ২টি সিগারেটের প্যাকেট ভর্তি করে ঘরের পাশে আবর্জনার মধ্যে পুতে রাখে।

 

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আরও জানান,

এ ঘটনার পর সোমবার সকালে এলাকাবাসী খবর দিলে পুলিশ সাতমাইল মথুরাপুর রেললাইনের পাশ থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে।

এরপর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের মাধ্যমে তার পরিচয় সনাক্ত করে ডিবি পুলিশ।

পরিচয় সনাক্তের পর ডিবি পুলিশের একটি টিম আঁখি মনির বাড়িতে গিয়ে আঁখি মনির পালিত বাবা মিন্টু সরদারকে আটক করে

জিজ্ঞাসাবাদ করলে মিন্টু হত্যার দায় স্বীকার করে তথ্য প্রদান করে। তাকে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

আরও পড়ুন :

এনএএন টিভি


One Reply to “মেলায় ঘুরতে নেওয়ার কথা বলে “ধর্ষণের পর কিশোরীকে হত্যা””

Comments are closed.

প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও
কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।